goofi book parenting

শিশুকে গল্পের বই পড়ে শুনানোর ১০ টি দরকারি টিপস

আমাদের অনেক অভিভাবক প্রশ্ন করেনঃ আমার শিশু তো এখনও পড়তেই পারে না। তাহলে এই বই তাকে কিভাবে দিবো?

আসলে শিশুর বয়স যখন ৩ বছর হয়ে যায় তখন থেকেই সে গল্প শুনে বুঝতে পারে। তাকে যদি সহজভাবে একটি গল্প শুনানো হয়, তাহলে সে পরে নিজে নিজে বলতেও পারে। এর জন্য যেসব শিশু এখনও নিজে পড়তে পারে না, তাদেরকে অভিভাবক ও বড়দের গল্পের বইটি পড়ে শুনাতে হয়।

শিশুকে গল্প পড়ে শোনানোর উদ্দেশ্য হলো, গল্পটি যেন শিশু কল্পনা করতে পারে এবং গল্পের শিক্ষা অনুধাবন করতে পারে। গুফির গল্পের বইগুলো সেভাবেই তৈরি করা। আপনার শিশু যদি এখনও নিজে নিজে পড়তে না পারে, তাহলে নিচের ধাপগুলো আপনি অনুসরণ করতে পারেন।

বইগুলো শিশুর কাছে প্রাণবন্ত করে তুলতে, এবং বইয়ের মাধ্যমে তার মূল্যবোধ, নৈতিকতা ও সৃজনশীলতা বাড়াতে এই কাজগুলো আপনি অবশ্যই করুন।

গুফির গল্পের বইগুলো পড়ে শুনানোর নিয়মঃ  

১। গল্পের বইটি আপনি আগেই ভালোভাবে পড়ে নিন।

২। একাধিক শিশু থাকলে, গোল হয়ে বসে আসর তৈরি করে গল্প পড়ুন।

৪। যেহেতু আপনি গল্পটি জানেন, সুতরাং শুরুতে এমন কিছু প্রশ্ন করুন যা শিশুকে গল্পের প্রতি বা গল্পের বিষয়ের প্রতি আগ্রহী করে তুলবে। 

৩। শিশুকে বইয়ের প্রচ্ছদ দেখান। গল্পের বিষয় সম্পর্কে শিশুকে ভাবতে সাহায্য করুন। ছবিতে কি দেখা যাচ্ছে, কে কি করছে জিজ্ঞেস করুন।

৫। গল্প পড়ার সময় প্রতি পৃষ্ঠার ছবি দেখান এবং ছবি নিয়ে কথা বলুন। লেখা হুবুহু না পড়ে, প্রয়োজনে সহজ ভাষায় বলুন।  

৬। গল্প পড়ার সময় অবশ্যই বডি ল্যাংগুয়েজ ব্যবহার করুন। পারলে বিভিন্ন চরিত্রের সাথে মিলিয়ে মুখের ভাব ও অভিব্যক্তি দিন। এতে আপনার শিশু সহজে গল্পটি কল্পনা করতে পারবে।

৭। গল্প পড়া শেষ হলে শিশুর কাছে গল্পটি কেমন লেগেছে, সেটা জিজ্ঞেস করুন। গল্পটি সামারাইজ করতে বলুন। এছাড়াও গল্পের বিভিন্ন চরিত্র, ছবি এবং কথা আলোচনা করুন।

৮। গুফির প্রতিটি বইয়ে কোন না কোন ম্যাসেজ থাকে। শিশু সেটি বুঝতে পেরেছে কিনা জানতে চেষ্টা করুন। না বুঝলে সহজ ভাষায় বুঝিয়ে বলুন।

৮। গল্পটি শিশুর কেমন লেগেছে, সেটা বলতে উৎসাহিত করুন। একাধিক শিশু থাকলে, প্রত্যেকের কাছে আলাদাভাবে শুনুন।

৯। বইয়ে কোন ছড়া থাকলে সেটি আপনার সাথে সাথে শিশুকেও বলতে বলুন। এতে শিশু খুব আনন্দ পায়।

১০। সবশেষে, গল্পের বইয়ের লেখক ও আঁকিয়ের সাথে শিশুকে পরিচয় করিয়ে দিন।

এ ধাপগুলো মেনে শিশুকে বইয়ের প্রতি, পড়ার প্রতি উৎসাহী করে তুলতে পারবেন। তখন নতুন কিছু শিখতে আপনার শিশুর আন্তরিকতা ও অভ্যাস তৈরি হবে। 

Goofi Story Books

গুফির গল্পের বইগুলো শিশুদের মধ্যে দারুণ জনপ্রিয়। অনেক অভিভাবক গুফির বইগুলো নিয়মিতভাবে পাওয়ার জন্য Goofi Kids Club এর সদস্য করে নিয়েছেন নিজেদের সন্তানের জন্য। এতে করে যখনই নতুন সিরিজ আসে গুফি থেকে, অভিভাবকরা আগে থেকেই জেনে যান। বিস্তারিত জানতে পারবেন নিচের ছবিতে ক্লিক করে।

goofi book member

Share with friends
  •  
  •  
  •  
  •  
Tagged on: